সোমবার   ২৬ আগস্ট ২০১৯   ভাদ্র ১০ ১৪২৬   ২৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

২৮২

ঐক্যফ্রন্টের পরাজয়ের ৭ কারণ

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৭ জানুয়ারি ২০১৯  

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন জোটের প্রতিপক্ষ জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের পরাজয়ের ৭টি কারণের কথা জানালেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শুক্রবার সন্ধ্যায় গণভবনে জাতির উদ্দেশ্যে দেয়া এক ভাষণে তিনি কারণগুলো তুলে ধরেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের প্রতিপক্ষ জোটের নির্বাচনী কৌশল সম্পর্কে আপনারা ভালোভাবেই জানেন। আমি এ নিয়ে কথা বলতে চাই না। তাদের পরাজয়ের বহু কারণ রয়েছে।

এ সময় তিনি পরাজয়ের ৭টি কারণ উল্লেখ করেন। কারণগুলো হলো-

১. এক আসনে ৩-৪ জন বা তারও বেশি প্রার্থী মনোনয়ন।

২. মনোনয়ন নিয়ে ব্যাপক বাণিজ্যের অভিযোগ এবং দুর্বল প্রার্থী মনোনয়ন।

৩.নির্বাচনে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলে কে প্রধানমন্ত্রী হবেন- সে বিষয়ে অনিশ্চয়তা।

৪. নিজেরা জনগণের জন্য কী করবে, সে কথা তুলে ধরতে ব্যর্থ হয়েছে। অপরদিকে ক্ষমতায় গেলে আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে কী ধরনের প্রতিহিংসামূলক ব্যবস্থা নেবে- তাদের প্রচারণায় সেটি প্রাধান্য পেয়েছে।

৫. সোশ্যাল মিডিয়ায় আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে বিষোদ্গার করা ছাড়া নিজেদের সাফল্যগাঁথা তারা তুলে ধরতে পারেনি।

৬. ২০১৩ থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত বিএনপি-জামায়াতের দেশব্যাপী অগ্নি-সন্ত্রাস ও ধ্বংসাত্মক কর্মকাণ্ড সাধারণ মানুষের মন থেকে মুছে যায়নি।

৭. বিএনপির ধানের শীষ প্রতীকে যুদ্ধাপরাধী জামায়াত নেতাদের মনোনয়ন তরুণ ভোটাররা মেনে নিতে পারেনি। তরুণেরা আর যাই হোক স্বাধীনতাবিরোধী শক্তির পক্ষ নিতে পারে না।

আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, এ রকম আরও বহু উদাহরণ দেয়া সম্ভব, যার মাধ্যমে প্রমাণ করা যাবে যে সাধারণ ভোটাররা বিএনপির দিক থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছিলেন এবং নৌকার অনুকূলে এবার গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছিল।

রাজবাড়ী প্রতিদিন
রাজবাড়ী প্রতিদিন
এই বিভাগের আরো খবর